ফুলবাড়িয়ায় জামিনে এসে মামলার বাদীকে খুন

Jamal Jamal

Khan

প্রকাশিত: ৫:৫৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২১, ২০২০

ফুলবাড়িয়ায় জমি সংক্রান্ত ঘটনায় মামলা করার পর আসামীরা জামিনে এসে বাদী নুর মোহাম্মদ (৫৫) কে প্রকাশ্যে দাঁরালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে ক্ষতবিক্ষত করে হত্যা করে।
উপজেলা বরুকা উত্তর পাড়া গ্রামে রবিবার বিকালে ঘটনাটি ঘটেছে। হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকায় রাতে পুলিশ তারিকুল ইসলাম (১৯) ও রাকিব মিয়া (২১) কে গ্রেফতার করেছে । তাঁরা দুইজন বরুকা উত্তরপাড়া গ্রামের আবু বক্কর সিদ্দিকের পুত্র।
গতকাল সোমবার ময়না তদন্তের জন্য লাশ মচিমহা মর্গে প্রেরণ করেছে। এ ঘটনায় নিহত নুর মোহাম্মদের স্ত্রী শেফালী খাতুন বাদী হয়ে রাতে আবু বক্কর সিদ্দিক, তারিকুল ইসলাম,রাকিব মিয়াসহ ১৪জনকে আসামী করে ফুলবাড়িয়া থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।
এলাকাবাসীর সাথে কলা বলে জানাগেছে, বরুকা উত্তর পাড়া গ্রামের মৃত রৌশন আলী পুত্র নুর মোহাম্মদকে গত এক সপ্তাহ আগে বাড়ি ভিটের জমি দখল নিয়ে তাকে বাড়ি থেকে উচ্ছেদ করে দেয়। উচ্ছেদের ঘটনায় নুর মোহাম্মদ বাদী হয়ে তারিকুল ইসলামসহ ১৩ জনকে আসামী করে ফুলবাড়িয়া থানায় মামলা করেন। রবিবার দুপুরে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ চলে আসার প্রায় এক ঘন্টা পর দেশিয় অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে বাড়ি ঘরে হামলা করে নুর মোহাম্মদকে কুপিয়ে হত্যা করে। এসময় তাঁর স্ত্রী শেফালী ও নাসিমাকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।
নিহতের ভাতিজা কবির হোসেন বলেন, ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ চলে যাবার পর বিকালে জামিনে এসে দাঁরাল অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে জেঠাকে।
এস,আই হাসান বলেন, নুর মোহম্মদ বাড়িতে কাজ করার সময় তাকে বাঁধা দেয়ার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে উভয় পক্ষের সাথে আলোচনা করে ঝগড়া বিবাদ না করতে নিষেধ করে চলে আসি। বিকালে আসামীরা জামিনে এসে আবারও হামলা চালিয়ে নুর মোহাম্মদকে কুপিয়ে হত্যা করে।
ফুলবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোহা. আজিজুর রহমান জানান, জমি সংক্রান্ত ঘটনায় খুনের সাথে জড়িত দুইজনকে রাতেই গ্রেফতার করে গতকাল তাদেরকে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে,অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতার অভিযান চলছে।